সঠিক তারা গণনা

    সভাসদর উদ্যান বাটীতে সকলেই সেদিন উপস্থিত। সেদিন রসিকতা করে সম্রাট একদম সোজাসুজি সকলের দিকে তাকিয়ে প্রশ্ন করে বসলেন, আকাশে কতগুলি তারকা আছে বলতে পারো কেউ ?’
    সামনে জানলার বাইরে ছিল মস্ত এক পুরনো ঝাকড়া তেঁতুল গাছ। সেইদিকে তাকিয়ে বাইরে লক্ষ রেখে বীরবল বললেন, ‘হুজুর যদি তামাশা মনে না করেন তাহলে সত্যি কথাই বলি। মিথ্যে কথা বলার অভ্যেস আমার একেবারেই নেই কিনা, সেজন্যই সত্যি কথা বলতে বাধ্য।’
    আকবর গম্ভীর হয়ে বললেন, না না, সে কি কথা, তামাশা মনে করব কেন? আমি নির্ভুল জবাব পেতে চাই। তুমি সত্যি কথাই বলো।’
    বীরবল বললেন, জানলার নীচে প্রাচীন তেঁতুল গাছটা দেখছেন সম্রাট? ওই গাছে যতগুলো পাতা আছে, তার চেয়ে আর মাত্র ১০০১টি তারকা আকাশে বেশি আছে হুজুর।’  
    তোমার গণনা নির্ভুল, কেমন করে জানব।  
    ‘খুব সহজ’—বীরবল বললেন, একদল  দক্ষ কর্মচারী লাগিয়ে ওই গাছটার পাতাগুলি  আগে গুনিয়ে নিল, তারপর আমার হিসেব  মিলিয়ে প্রমাণ করে দেব, সম্রাট! যদি হিসেবে  ভুল হয়ে তবে যে শাস্তি দেবেন মাথা পেতে  নেব। আর যদি ঠিক হয় তবে আপনি যেমন খুশি পুরস্কার দেবেন হজুর।’
    সভাসদগণ স্তব্ধ! কারও মুখে ভাষা নেই। সকলে নির্বাক।  বিরাট কলেবর ওই তেঁতুল গাছের পাতা গোনা অসম্ভব, সম্রাট বেশ জানেন। কিন্তু  বীরবলের জবাবকেও তো ভুল ঘোষণা করা  যায় না!
    সম্রাট খুশি হয়ে বীরবলকে যথাযোগ্য  বকশিশ দান করলেন এবং উপস্থিত বুদ্ধির জন্য তারিফ করতে লাগলেন।
Previous
Next Post »
0 মন্তব্য