গণৎকার নাসিরউদ্দিন -- মোল্লা নাসিরউদ্দিন

   পয়সা উপার্জনের জন্য মাঝে-মধ্যে নাসিরুদ্দিন গণৎকারের ভূমিকাও নিতে বাধ্য হতেন।
   একদিন হঠাৎ তিনি বলে বসলেন,—‘জানেন বাদশা, আপনার প্রধান মন্ত্রীর মৃত্যু হবে ঘোড়ার পিঠ থেকে পড়ে।’
আসলে নাসিরুদ্দিন জানতেন মন্ত্রীর ঐ ঘোড়াটা ভীষণ পাজি আর বেপরোয়া।
   সত্য-সত্যই একদিন বাদশার কাছে খবর এলো, তার প্রধানমন্ত্রীর মৃত্যু ঘটেছে ঘোড়ার পিঠ থেকে পড়ে।
   সঙ্গে সঙ্গে বাদশা এত্তেলা পাঠালেন নাসিরুদ্দিনকে। বললেন,—
   ‘তোমার ভবিষৎ-গণনা সত্যিই চমৎকার । এখন বলে তো বাপু, তোমার নিজের মৃত্যুটা কবে হবে?
   বাদশার এহেন জিজ্ঞাসায় কেমন যেন বিপদের গন্ধ পেলেন নসিরুদিন। সঙ্গে সঙ্গে জবার দিলেন,—‘জাহাপনা, আমার মৃত্যু, আমি যতদূর গণনা করে বলতে পারি, ঠিক আপনার মৃত্যুর দু'দিন, অর্থাৎ আটচল্লিশ ঘণ্টা পরে হবে।’
   বাদশা নিজের প্রাণের ভয়ে নসিরুদিনকে আর ঘাঁটালেন না।
Previous
Next Post »
0 মন্তব্য