দরজার মাপ

একদিন বীরবল এক আত্মীয়ের বাড়ি থেকে ফিরছেন পায়ে হেঁটে, এমন সময় হঠাৎ পাশের একটি নালা থেকে একজনের আর্তনাদ শুনতে পেলেন। সেদিকে নজর দিয়ে তিনি দেখলেন, লোকটি হাত দুটাে দুদিকে ছড়িয়ে নালার জলের মধ্যে পড়ে চিৎকার করে কাঁদছে “আমাকে বাঁচাও, কে কোথায় আছ আমাকে বাঁচাও’ বলে। বীরবল ছুটে গেলেন সেই লোকটার দিকে। বীরবল তার হাত-পা ধরে তুলতে গেলে সে বলল, হাত ধরে না তুলে চুলের মুঠি ধরে তুলুন। এর কারণ জিজ্ঞেস করায় সে কোনও উত্তর না দিয়ে বলল, শিগগির তুলুন আগে। চুলের মুঠি ধরেই বীরবল তুললেন তাকে। তখনও কিন্তু সে নিজের হাত দুটোকে ছড়িয়েই রাখল।

তখন বীরবল এর কারণ জানতে চাইলে সে এবার বলল, আমি এক ছুতোর মিস্ত্রির কাছে গিয়েছিলাম দরজার কপাট তৈরি করানোর জন্য। মিস্ত্রিটি দরজার মাপ চাইলে আমি তাই মিস্ত্রির কথামতো বাড়িতে কপাটটির মাপ নিয়ে মাপটা দিতে যাচ্ছিলাম তাকে। হাত দুটো ছড়িয়ে রাখলে যতটা মাপ হয় আমার দরজার মাপও তাই, সেই কারণেই আমি হাত দুটো ছড়িয়েই মিস্ত্রির কাছে যাচ্ছিলাম। এমন সময় পা পিছলে পথে নালার মধ্যে পড়লেও আমি মাপের কথা ভুলিনি। হাত দুটো তাই ছড়িয়ে রেখেছিলাম,পাছে মাপটার কথা ভুলে যাই এখন বুঝলেন—কেন আমি আপনাকে আমার চুলের মুঠি ধরে তুলতে বলেছিলাম! এমনি এমনি বলিনি মশাই, দেখুন আমার কেমন বুদ্ধি!

Previous
Next Post »
0 মন্তব্য