ষড়যন্ত্রের বিপরীত ফল

এক সিংহ বুড়ো হয়ে গেছে, তাছাড়ও সে অসুস্থ। কয়েকদিন ধরে গুহায় শুয়ে আছে সে। বনের পশুরা একে এক এসে তাদের রাজাকে দেখে যাচ্ছে, আসেনি কেবল শেয়াল। এক নেকড়ে, সিংহ যাতে শুনতে পায় এমন জায়গায় দাঁড়িয়ে অন্যান্য পশুদের বলতে লাগল, আমি ভাবছি শেয়ালের কথা, আমাদের রাজার এমন অসুখ, অথচ একদিনও এল না তাঁকে দেখতে, এর মানে কি? এবং মনে হচ্ছে আমাদের রাজাকে সে কিছুমাত্র শ্রদ্ধভক্তি করে না। এমন কি গ্রাহ্য পর্যন্ত করে না।

নেকড়ে এই কথা বলার সময় কোন ফাঁকে শেয়াল এসে তার সব কথা শুনে ফেলেছে। সিংহ এদিকে নেকড়ের কথা শুনে শেয়ালকে দেখেই গর্জে উঠল, বটে রে!
শেয়াল তখন অতিশয় বিনয়ের সঙ্গে বলল, মহারাজ, রাগ করবেন না, আমার কথা আগে শুুনুন।
-- কি তোর কথা?
-- মহারাজ, এই ত বনের অনেক প্রজা আপনার এখানে হাজির আছে, আমার মত কে আপনার কণ্যানের জন্যে মাথা ঘামিয়েছে বলুন। আমি কিসে আপনার অসুখ সারে তাই জানবার জন্যে কত জায়গায় বদ্যির কাছে যে ঘুরে বেরিয়েছি তার লেখাযোখা নেই, শেষে জেনেও নিয়েছি তাদের কাছ থেকে আপনার অসুখ সারবার দাওয়াই।
--কি সে দাওয়াই?
--বদ্যিরা সবাই বলল, জ্যান্ত নেকড়ের ছাল ছাড়িয়ে গরম থাকতে থাকতে তাই দিয়ে আপনি গা ঢাকলে নির্ঘাত আপনার অসুখ সেরে যাবে।
এই কথা শুনবার সঙ্গে সঙ্গে নেকড়ে সিংহের হাতে প্রাণ হারাল।

উপদেশ: অপরের ক্ষতি করতে গেলে অনেক সময় নিজেরই ক্ষতিই ডেকে আনা হয়। “মশা মারতে গালে চড়”।
Previous
Next Post »
0 মন্তব্য