বাদশাহের নৌকা ভ্রমণ

এক বাদশাহ অনারব এক গোলামের সাথে নৌকার মধ্যে বসেছিলেন। ঐ গোলাম কখনো নদীতে নৌকা ভ্রমণ করে নি এবং নৌকা ভ্রমণের কষ্টও দেখেনি। নদী দেখে ভয়ে সে কাঁপতে লাগল এবং উচ্চঃস্বরে চীৎকার করতে লাগল। এতে বাদশাহর অবস্থা পরিবর্তন হয়ে গেল, শান্তির পরিবর্তে কষ্ট অনুভব করতে লাগল। শাহী মেজাজ এ অবস্থা সহ্য করতে পারছিল না, অথচ কোন উপায়ও ছিল না। তখন নৌকার মধ্যে এক জ্ঞানী ব্যক্তি বাদশাহকে বলল, আপনি যদি অনুমতি দেন তাহলে ওকে আমি কৌশলে চুপ করাতে পারি। বাদশাহ বললেন, “তাহলে খুব উপকারই হবে।” বাদশাহ একথা বলার সাথে সাথে ঐ গোলামকে নদীতে ফেলে দিল। কয়েকবার পানির মধ্যে চুবুনি খাওয়ার পর তার চুল ধরে নৌকার সামনে নিয়ে দু’হাত বেঁধে-বৈঠার সাথে ঝুলিয়ে রাখল। যখন পানি থেকে উপরে আসল, তখন চুপ করে বসল এবং সুস্থ হল। এটা দেখে বাদশাহ আশ্চর্যান্বিত হয়ে গেলেন এবং জিজ্ঞেস করলেন, এর রহস্য কী? তখন সে বলল, এ ব্যক্তি প্রথমে পানিতে ডুবে যাওয়ার কষ্ট জানত না এবং নৌকার ওপর বসে থাকার আরাম জানা ছিল না। এমনিভাবে শান্তির মূল্য ঐ ব্যক্তি অনুভব করতে পারে, যে বিপদগ্রস্ত হয়ে থাকে।


লেখাটি পাঠিয়েছেন: গোলাম মওলা আকাশ
Previous
Next Post »
0 মন্তব্য